বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০২:২৩ পূর্বাহ্ন

পুলিশের ডিউটি “- মোঃআনোয়ার হোসেন

রউফুল আলম
  • আপডেট টাইম: ১৬ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৮২ বার পঠিত

পুলিশের ডিউটি “
মোঃআনোয়ার হোসেন

প্রখর রৌদ্র, মুষলধারে বৃষ্টি
হোক জলচ্ছাস বন্যার সৃষ্টি,
হয় যদি প্রাণহানী তুফান ঝড়ে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

মিছিল মিটিং সমাবেশে
কিংবা দাঙ্গা লাগলে দেশে,
এমনকি যদি কেও গুলি বোমায় মরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

দুর্ঘটনা যে কোন পথে
ঈদ, হরতাল, মেলা রথে,
হঠাৎ কোন মানুষ যদি বিষ খেয়েও মরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

আনন্দ মুখর পরিবেশে
বড় কোন অনুষ্ঠান শেষে,
সবাই যখন চলে যায় আপন আপন ঘরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

শ্মশান কিংবা ডোমের ঘরে
অমাবস্যার অন্ধকারে,
যেখানে মানুষ যায়না ডরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

লাশ যেখানে সারি সারি
আত্ম চিৎকার আহাজারি,
এমনকি কাওকে যদি করোনা রোগে ধরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে ।

হোক সে VIP অথবা আমলা
কিংবা ভিখারি, দিন মজুর, কামলা,
তারাও যদি কোনদিন বিপদে পরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

যারা করে মাদক নেশা
কিংবা যাদের অসৎ পেশা,
যদি কোন ব্যক্তি যায় জুয়ার ঘরে
তাদের ও পুলিশ গ্রেফতার করে।

সকাল- বিকাল -রাত্রী কিংবা দুপুরে
চুরি ডাকাতি হয় যদি দশ তালার উপরে,
শুক্র শনি সবাই থাকে ছুটির অবসরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

খুন, ধর্ষণ,দুর্নীতি
কিংবা অবৈধ প্রেমপ্রীতি,
কেও যদি পরীক্ষার হলে নকলও করে,
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

পরিবারকে রেখে ঘরে
রাতের ঘুম হারাম করে,
কিংবা হালকা স্বর্দি জ্বরে
আর কেউ না থাকলেও পুলিশ ডিউটি করে।

পুলিশ যদি যায় অবসরে
বসেও যদি থাকে ঘরে,
সমাজ সেবা মূলক কিছু না কিছু করে।

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ