শুক্রবার, ১০ Jul ২০২০, ০৬:৩৩ অপরাহ্ন

তারাগঞ্জে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ ভুট্টা ক্ষেতে কয়েক লক্ষ টাকা ক্ষতির আশঙ্কা

Rouful Alam
  • আপডেট টাইম: ২৮ মে, ২০২০
  • ১০০ বার পঠিত

তারাগঞ্জে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ ভুট্টা ক্ষেতে কয়েক লক্ষ টাকা ক্ষতির আশঙ্কা

তারাগঞ্জ রংপুর প্রতিনিধি:

তারাগঞ্জে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ ভুট্টা ক্ষেত। কৃষকদের মধ্যে আহাজারি। সরজমিনে গতকাল উপজেলার পাচটি ইউনিয়ন ঘুড়ে দেখা গেছে ভুট্টা ক্ষেতগুলো ভেঙ্গে চুরমাড় গয়ে গেছে। উপজেলার ইকরচালী ইউনিয়নের হাজীপুর, কাচনা, জগদীশপুর ও দক্ষিন লক্ষীপুর মৌজার ভু্ট্টা ক্ষেতগুলো শুন্য হয়ে পড়ে আছে। অনেক চাষি মাথায় হাত দিয়ে বসে আছে। কান্না জড়িত কণ্ঠে ইকরচালী হাজীপুর মৌজার এন্দাদুল, লুৎফার রহমান, ছেয়াদুল, সাদিকুল, আনিছুল, এজাল, মিজনুর রহমান জানান প্রায় আমরা ১৫ একর জমিতে ভুট্টা চাষ করেছি। একটিও ধানের গুছি (চারা) লাগায়নি। ভুট্টা চাষে খরচ কম লাভজনক ফসল তাই আমরা সকলে ভুট্টা আবাদ করছি। কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাস ঘূর্ণিঝড়ে সব ভুট্টা ক্ষেতগুলো ধ্বংস হয়েছে। এখন আমরা কি করব ভেবে পারছি না। আলমপুর ইউনিয়নের শেরমস্ত বানিয়া পাড়া গ্রামের মর্জিনা বেগম জানান আমার স্বামী দুই একর জমিতে ভুট্টা চাষ করেছিল, কিন্তু ঘূর্ণিঝড় আমার সব ভুট্টা লন্ডভন্ড করেছে। আমার ছেলেমেয়ের লেখাপড়ার খরচ কিভাবে জোগাবো ভেবে পারছি না। একদিকে করোনার কারণে আমার স্বামী কাজ পাচ্ছে না অন্যদিকে সর্বনাশা ঘূর্ণিঝড় আমার শেষ সম্বল টুকু কেড়ে নিলো।

ইকরচালী ইউপি চেয়ার‌ম্যান রফিকুল ইসলাম জানান, আমার কাছে অনেক ক্ষতিগ্রস্থ চাষি এসেছে আমি তাদেরকে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার কাছে যাওয়ার জন্য বলেছি। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা অশোক রায় জানান আমি ক্ষতিগ্রস্থ চাষিদের তালিকা করে আমার উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের কাছে ইতিমধ্যে প্রেরণ করেছি।

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মুজিব শতবর্ষ