বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ০৩:২৩ পূর্বাহ্ন

চুয়াডাঙ্গায় দোকান কর্মচারীর হাতে আলমসাধু চালক খুন

শামসুজ্জোহা পলাশ, চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি
  • আপডেট টাইম: ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৫৮ বার পঠিত

চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার সরোজগঞ্জ বাজারে চাকু মেরে তরিকুল ইসলাম (২৫) নামের এক আলমসাধু চালককে খুন করা হয়েছে। আজ বুধবার সন্ধায় এ হত্যার ঘটনা ঘটে। নিহত তরিকুল সদর উপজেলার ভান্ডারদহ গ্রামের মঈন উদ্দীনের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শিরা জানান, আজ (০৯ সেপ্টেম্বর) বুধবার সন্ধার পর চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার সরোজগঞ্জ বাজারের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী শাহা স্টোরের কর্মচারী ও একই উপজেলার পুরাতন যাদবপুর গ্রামের বদরউদ্দিনের ছেলে রিফাত উদ্দীনের সাথে আলমসাধু চালক তরিকুল ইসলামের কথাকাটি হয়। এক পর্যায়ে দোকান কর্মচারী রিফাত তার হাতে থাকা বুমা (বস্তা থেকে চাউল চেক করার জন্য চাকু সাদৃশ্য বস্তু) দিয়ে তরিকুলের পেটে আঘাত করলে সেটি তার পেটের ভিতর ঢুকে যায়। এতে সে মারাত্নক ভাবে আহত হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এসময় স্থানীয় লোকজন তরিকুলকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যায়। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণে তার মৃত্যু হয়েছে বলেও তারা জানান।

চুয়াডাঙ্গা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু জিহাদ ফকরুল আলম খাঁন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ বিষয়ে নিহতের পিতা মঈন উদ্দীন বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। ঘটনার পর থেকে ঘাতক রিফাত পলাতক রয়েছে। তাকে আটক করতে পুলিশি অভিযান শুরু হয়েছে। নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ