সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:৪৫ অপরাহ্ন

চন্দনাইশে বঙ্গবন্ধু-প্রধানমন্ত্রীর অবমাননা

রউফুল আলম
  • আপডেট টাইম: রবিবার ২০ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৫১ বার পঠিত

 

এম মনির চৌধুরী রানা

চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার সর্বশেষ ইউনিয়ন পাহাড়ি এলাকা ধোপাছড়ী। ইউনিয়নটি চন্দনাইশের দূর্গম এলাকায় হওয়ায় অনেকটা উপজেলা থেকে বিচ্ছিন্ন।

গত ১৬ই ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস-২০২০ উদযাপন ও নবনির্মিত ধোপাছড়ী ইউনিয়ন পরিষদ কমপ্লেক্স ভবন এবং ধোপাছড়ী টু চন্দনাইশ সরাসরি সংযোগ (খাঁনহাট-ধোপাছড়ী-বান্দরবান) সড়কের শুভ উদ্বোধন উপলক্ষ্যে প্রধান অতিথি হিসেবে ধোপাছড়ী সফর করেন চন্দনাইশ-সাতকানিয়া(আংশিক) এর সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম চৌধুরী মহোদয়।

এতে আরো উপস্থিত ছিলেন চন্দনাইশ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আব্দুল জব্বার চৌধুরী ও ভাইস চেয়ারম্যান সোলাইমান ফারুকী, চন্দনাইশ উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি জাহেদুল ইসলাম জাহাঙ্গীর সহ চন্দনাইশ আওয়ামীলীগের বহু নেতৃবৃন্দ।

উক্ত অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথিদের শুভ আগমন এবং বিজয় দিবসের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়ে ধোপাছড়ী ইউনিয়নের বিভিন্নস্থানে উল্লিখিত অতিথিদের ছবি সহ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি সম্বলিত ব্যানার-ফেস্টুন লাগান ধোপাছড়ীরই নাগরিক বিশিষ্ট সমাজসেবক, চন্দনাইশ সমিতি-চট্টগ্রামের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক, ধোপাছড়ী সমিতি-চট্টগ্রামের সভাপতি ও আওয়ামীলীগ নেতা জনাব আব্দুল আলিম।

কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয় হচ্ছে, ধোপাছড়ী শীলঘাটা উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন ও বিভিন্ন স্থানে লাগানো আব্দুল আলিমের উক্ত ব্যানার-ফেস্টুন কে বা কারা রাতের আঁধারে ছিঁড়ে দিয়ে যায়। এ বিষয়ে জানতে চাইলে আব্দুল আলিম বলেন- কিছু দুষ্কৃতিকারী আমার বিজয় দিবসের দেওয়া ব্যানার-ফেস্টুন ছিঁড়ে ফেলে, অথচ উক্ত ব্যানারে বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী, মাননীয় এমপি মহোদয়ের ছবি সহ আরো অনেকের ছবি ছিল।

যে বা যারাই এ কাজ করেছে তারা শুধু আমার ব্যানার-ফেস্টুন ছিঁড়ে অবমাননা করেনি বরং বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী ও এমপি মহোদয়ের ছবিকে অবমাননা করেছে। আমি প্রশাসনের কাছে এমন গর্হিত ও ঘৃণিত কাজ যারা করেছে তাদের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে বিচারের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

কেননা আজ একজনকে ছেড়ে দিলে আগামীতে অন্যরাও করার সুযোগ পাবে। পরিশেষে বলতে চাই, রাজনীতির এমন নোংরা মানসিকতার পরিবর্তন আসা জরুরি। স্বাধীন দেশে এমন কাজ কখনোই শোভনীয় নয়। এ বিষয়ে এলাকাবাসীর কাছে জানতে চাওয়া হলে তারাও জানান, আমরা চাই এসব কাজ যারা করেছে তাদের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে বিচারের আওতায় আনা হোক।

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ