বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৫২ অপরাহ্ন

ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণ ছিল মুক্তিযুদ্ধের প্রেরণার উৎস-তথ্য প্রতিমন্ত্রী

ইন্দোবাংলা রিপোর্ট
  • আপডেট টাইম: সোমবার ১ মার্চ, ২০২১
  • ১৭০ বার পঠিত
ছবিঃ সংগ্রহীত

তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান বলেছেন, ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ ছিল বাঙালি জাতির জীবনে এক অবিস্মরণীয় ঘটনা। বাঙালি জাতি সেদিন ঐক্যবদ্ধ হয়েছিল। মুক্তিকামী মানুষ তাদের নেতার মুখে মুক্তিযুদ্ধের দিকনির্দেশনা শোনার জন্য একত্রিত হয়েছিল রেসকোর্স ময়দানে।

তিনি আরও বলেন, দেশের সেই উত্তাল পরিস্থিতিতে করণীয় কী, তা জানতে অধীর আগ্রহে ছিল মুক্তিকামী জনতা। তাদের মুখে ছিল নানা ধরনের স্বাধীনতার স্লোগান। ঐতিহাসিক এ ভাষণটি সবদিক থেকেই ছিলো পরিপূর্ণ। মুক্তিযুদ্ধে এ ভাষণ প্রেরণার উৎস হিসেবে কাজ করেছে। যতদিন বাংলাদেশ থাকবে, ততদিন এ ভাষণ মানুষের মনের মণিকোঠায় থাকবে।

সোমবার জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে পৌরসভার নব-নির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলরদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি। উপজেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে পৌর ক্যাম্পাসে এ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি উপাধ্যক্ষ মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মিজুর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আবু জাফর আহম্মদ শীশা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব ছানোয়ার হোসেন বাদশা, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা গিয়াস উদ্দিন পাঠান, পৌর মেয়র মনির উদ্দিন, আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা সদস্য আবুল হোসেন, তারাকান্দি ট্রাক ও ট্যাঙ্কলরি মালিক সমিতির সভাপতি মোজাম্মেল হক মুকুল, পিংনা ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক সেলিম আল মামুনসহ পৌরসভার নব-নির্বাচিত কাউন্সিলরবৃন্দ।

ইন্দোবাংলা/সি,কে

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ