রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০১:০৩ পূর্বাহ্ন

ফাঁকা উত্তরের পথ

ইন্দোবাংলা প্রতিনিধি. টাঙ্গাইল
  • আপডেট টাইম: বৃহস্পতিবার ১৩ মে, ২০২১
  • ২২০ বার পঠিত

আগামীকাল (শুক্রবার) ঈদুল ফিতর। মুসলমান ধর্মাবলম্বীদের এই প্রধান উৎসবের আনন্দ পরিবারের সঙ্গে ভাগ করে নিতে গ্রামে ছুটছেন কর্মজীবীরা। গত কয়েকদিনে মহাসড়কে যানবাহনের দীর্ঘ সারি সেই আনন্দকে ভোগান্তিতে রূপ দিয়েছিল। তবে ভিন্ন চিত্র দেখা গিয়েছে আজ।

সর্বশেষ দুই দিনে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে যানবাহনের দীর্ঘ সারি ছিল। তবে বৃহস্পতিবার (১৩ মে) সকাল থেকেই ফাঁকা উত্তরাঞ্চলের গেট হিসেবে খ্যাত মহাসড়কটি। ঈদে ঘরে ফেরা মানুষ নিয়ে অল্প কিছু যানবাহন চলাচল করছে। স্বাভাবিক গতিতেই চলছিল সেগুলো। কোথাও গাড়ির ধীরগতি বা যানজট নেই। মহাসড়কটির বিভিন্ন পয়েন্ট ঘুরে এমনই চিত্র দেখা গেছে।

ঈদে বাড়ি ফেরার জন্য এখনও রাস্তায় রয়েছেন অল্প সংখ্যক মানুষ। দূরপাল্লার বাসও চলছে রাস্তায়। তবে মহাসড়কটিতে মোটরসাইকেলের আধিক্য বেশি। শেষ দিনের ঈদযাত্রায় ফাঁকা মহাসড়ক মানুষের মনে এনে দিয়েছে স্বস্তি।

টাঙ্গাইল জেলা পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায় বলেন, ‘গত দুইদিন ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে প্রচুর গাড়ির চাপ দেখা যায়। কিন্তু গতকাল বিকেল থেকেই ধীরে ধীরে চাপ কমতে থাকে। এখন স্বাভাবিকভাবেই গাড়ি চলাচল করছে। কোথাও যানবাহন আটকে নেই।’

করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে গোটা দেশেই আরোপিত রয়েছে কঠোর বিধিনিষেধ। সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী বন্ধ রয়েছে দূরপাল্লার গণপরিবহণ। তবে দূরপাল্লার বাস না থাকলে থেমে যায়নি ঘরমুখোরা।

ট্রাক, পিকআপ, প্রাইভেট কার, মাইক্রোবাস, মোটরসাইকেলসহ বিভিন্ন যানবাহনে করে ফিরেছেন বাড়িতে। আবার অনেকে যানবাহন না পেয়ে পায়ে হেঁটে গন্তব্যের দিকে ছুটেছেন। ঘণ্টার পর ঘণ্টা মহাসড়কে থাকলেও মুখে এক রাশ হাসি নিয়েই বাড়ি ফিরেছেন ঘরমুখোরা।

ইন্দোবাংলা/আর. সি

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ