বৃহস্পতিবার, ১৭ Jun ২০২১, ০৯:১৪ পূর্বাহ্ন

আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি চূড়ান্ত

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম: বুধবার ২৫ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ৩৭৯ বার পঠিত

চূড়ান্ত করা হয়েছে আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি। মঙ্গলবার রাতে গণভবনে অনুষ্ঠিত দলটির প্রেসিডিয়ামের প্রথম সভায় কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বাকি ৩৯টি পদে নাম চূড়ান্ত করা হয়েছে।

সদস্যরা চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের ভার প্রধানমন্ত্রীর হাতেই দেন। পরে তা চূড়ান্ত করা হয়। তবে শূন্যপদে যাদের অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে, তাদের নাম রাত সাড়ে ৯টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত জানা যায়নি। তখনও বৈঠক চলছিল।

কাল বৃহস্পতিবার আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে কমিটির শূন্যপদে যারা স্থান পেয়েছেন, তাদের নাম ঘোষণা করবেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। খবর সংশ্লিষ্ট সূত্রের।

সূত্র জানায়, বৈঠকের শুরুতেই প্রেসিডিয়াম সদস্যরা নবমবারের মতো আওয়ামী লীগের সভাপতি নির্বাচিত হওয়ায় বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানান।

এসময় স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন বঙ্গবন্ধুকন্যা। নানা ঘাত-প্রতিঘাতের মধ্যেও আওয়ামী লীগকে আজকের অবস্থানে নিয়ে আসায় নেতাকর্মীদের সহযোগিতার কথা তুলে ধরেন তিনি। এসময় নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদকসহ প্রেসিডিয়ামের সদস্যদেরও অভিনন্দন জানান শেখ হাসিনা।

সভায় উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী, মতিয়া চৌধুরী, শেখ ফজলুল করিম সেলিম, মোহাম্মদ নাসিম, কাজী জাফর উল্লাহ, অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন, নুরুল ইসলাম নাহিদ, ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, পীযুষ কান্তি ভট্টাচার্য, ড. আবদুর রাজ্জাক, কর্নেল (অব.) ফারুক খান, রমেশ চন্দ্র সেন, আবদুল মান্নান খান, আবদুল মতিন খসরু, শাজাহান খান, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আবদুর রহমান। দলের দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়াও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

আরও জানা গেছে, বৈঠকের একপর্যায়ে আওয়ামী লীগ সভাপতি শূন্য পদগুলোর জন্য প্রেসিডিয়াম সদস্যদের মতামত চান। প্রেসিডিয়াম সদস্যরা কমিটি গঠনের সম্পূর্ণ দায়িত্ব দেন দলীয় সভাপতিকে। তারা বলেন, নেত্রী আপনি সবাইকে চেনেন, জানেন। আপনি দীর্ঘদিন এ দল পরিচালনা করে আসছেন। আপনার নেতৃত্বে আমরা আছি। কাকে নিলে সংগঠন ভালো চলবে, তা আপনার চেয়ে ভালো কেউ জানে না।

আপনি যাকেই দায়িত্ব দেবেন, আমরা তাকে নিয়েই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করব। পরে শেখ হাসিনা তিনটি সাংগঠনিক সম্পাদক, ৫টি সম্পাদকীয়, কোষাধ্যক্ষ, উপপ্রচার, উপদফতর ও ২৮টি সদস্য পদের একটি তালিকা সভায় উপস্থাপন করেন। সদস্যরা তাতে সম্মতি জানান। পরে সেই তালিকাই চূড়ান্ত করা হয়।

গত শুক্রবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের ২১তম জাতীয় কাউন্সিলের উদ্বোধন করেন দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পর দিন ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশন মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের কাউন্সিলের অধিবেশনে নির্বাচিত হয় নতুন নেতৃত্ব। সেখানে শেখ হাসিনা নবমবার সভাপতি ও ওবায়দুল কাদের টানা দ্বিতীয় মেয়াদে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। একই সঙ্গে সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের সঙ্গে ৮১ সদস্যের কার্যনির্বাহী সংসদের ৪২টি পদের নাম ঘোষণা করা হয়।

এর মধ্যে সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম প্রেসিডিয়ামের ১৭ সদস্য, ৪ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, আট সাংগঠনিক সম্পাদকের মধ্যে পাঁচটি এবং ১৯ সম্পাদকীয় পদের মধ্যে ১৪ জনের নাম ছিল। এছাড়া ৫১ সদস্যের উপদেষ্টা পরিষদের ৪০ জনের নাম ঘোষণা করা হয়। পাশাপাশি দলের সংসদীয় বোর্ড ও স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ড গঠন করা হয়। এসব নাম কাউন্সিলরদের কণ্ঠভোটে অনুমোদন করিয়ে নেয়া হয়।

প্রেসিডিয়ামে আগের কমিটির সব সদস্য বহাল রাখা হয়। তবে নতুন করে জায়গা পান আগের কমিটির দুই যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক- জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আবদুর রহমান এবং সাবেক মন্ত্রী শাজাহান খান। এছাড়া পদোন্নতি পেয়েছেন আগের কমিটির আট নেতা।

নিউজটি শেয়ার করুন


এই ক্যাটাগরীর আরো খবর..

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ