মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৮:৪৪ পূর্বাহ্ন

সরকারি জরুরি হটলাইন

সরকারি তথ্য ও সেবা-৩৩৩, জরুরি সেবা-৯৯৯, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধে-১০৯, দুদক-১০৬, দুর্যোগের আগাম বার্তা-১০৯০, শিশুর সহায়তায় ফোন-১০৯৮, ভূমির সেবা পেতে...অভিযোগ জানাতে-১৬১২২, ই-জিপি জরুরি হেল্পলাইন-১৬৫৭৫, নৌপরিবহনের হেল্পলাইন-১৬১১৩। তথ্য সুত্র : পিআইডি

গ্যারেথ বেলের সঙ্গে বিরাট কোহলির জুটি!

শিরোনাম পড়ে নিশ্চয়ই বিস্মিত হচ্ছেন! একজন ক্রিকেটার, এই সময়ের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যানও। অন্যজন ফুটবল এবং বলা বাহুল্য ইতিহাসের সবচেয়ে দামি ফুটবলারও। কিন্তু বিরাট কোহলির সঙ্গে গ্যারেথ বেলের এই জুটিটা কী করে হলো?

আসলে দুজনকে এক জায়গায় মিলিয়ে দিয়েছে খেলার প্রতি ভালোবাসা। সেই ভালোবাসা থেকেই ‘স্পোর্ট কনভো’ নামে একটা অনলাইনভিত্তিক প্রতিষ্ঠান খুলেছেন ভারতীয় টেস্ট অধিনায়ক বিরাট কোহলি। যেখানে ক্রীড়াপ্রেমী মানুষেরা নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ করবেন, খেলা নিয়ে আলোচনা হবে এবং বিভিন্ন খেলার সাম্প্রতিক খবর পাওয়া যাবে। অনেকটা খেলা বিষয়ক যোগাযোগমাধ্যমের মতো। কোহলির এই ধারণাটি গ্যারেথ বেলের এতই পছন্দ হয়েছে যে, এর সঙ্গে যুক্ত হওয়ার প্রস্তাব পাওয়ার পর সঙ্গেই সঙ্গেই রাজি হয়ে গেছেন রিয়াল মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড।

কিন্তু এত খেলোয়াড় থাকতে কোহলি বেলকেই বা কেন প্রস্তাব দিতে গেলেন? ক্রিকেটার হলেও বিরাট কোহলির ফুটবলপ্রেম তো আর অজানা কিছু নয়। ইন্ডিয়ান সুপার লিগ ফুটবলে তো তিনি এফসি গোয়া দলের মালিকও। আবার ইউরোপিয়ান ফুটবলে যে তিনি রিয়াল মাদ্রিদের বড় সমর্থক সেটা তো বিভিন্ন সময়ে টুইট করেই জানিয়েছেন। বেলের সঙ্গেও সেই সূত্রেই পরিচয়।

বন্ধুত্বটা যে এখন আরও ঘনিষ্ঠ হয়েছে সেটা বোঝা যাবে কাল কোহলির এই উদ্যোগের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার খবর জানিয়ে বেলের টুইটেও। এক ভিডিও বার্তায় বলেছেন, ‘আসলে গল্পটা খুব আকর্ষণীয়। আমি তো অনেক দিন ধরেই ক্রিকেটের ভক্ত। কোহলিকেও অনুসরন করছি অনেক দিন ধরেই। আমাদের বেশ কয়েকবার কথা হয়েছে। তাই সে যখন আমাকে স্পোর্ট কনভোর ধারনাটা বলল, বিস্তারিত শুনে আমি সঙ্গে সঙ্গেই রাজি হয়ে গেলাম।’

এর আগে বেলের যুক্ত হওয়ার খবরটা দিতে গিতে টুইটারে বেশ রহস্য করেছেন কোহলিও। হাত দিয়ে একটা ‘হৃদয়’ চিহ্ন বানিয়ে সেটার ছবি দিয়ে লিখেছেন, ‘আমার নতুন উদ্যোগে বিশেষ একজন যুক্ত হচ্ছেন। কে বলতে পারবে তাঁর নাম?’

গোল করার পর যে বেল হাত দিয়ে ‘হৃদয়’ বানান, সেটা যারা জানেন তারা অবশ্য তখনই আন্দাজ করে ফেলেছিলেন নামটা! টাইমস অব ইন্ডিয়া।

সংবাদ শেয়ার করুন

সতর্ক বার্তা

আমরা নিজস্ব সংবাদ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বে-আইনি। -ইন্দোবাংলা টীম।

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ৩১ নির্দেশনা

© ইন্দোবাংলা২৪.কম সকল অধিকার সংরক্ষিত ২০২২।
কারিগরি সহায়তায়: অল আইটি